অর্থমন্ত্রী চিদাম্ববরম সবাইকে বলছেন আগামি এক বছর সোনা কিনবেন না। কারণ। প্রতি আউন্স সোনা কিনতে আমাদের ডলার খরচা করতে হয়। কারণ ভারতে তো সোনার খনি নেই। একবছর সোনা না কিনলেই নাকি আমাদের দেশের কারেন্ট অ্যাকাউন্টের অবস্থা খুব ভাল হয়ে যাবে। আর এই যে ডলারের তুলনায় টাকার দাম কমে যাচ্ছে, এইসব সমস্যা মিটে যাবে।
এতে আমার কোন সমস্যা নেই। আমার থার্মোমিটার ও নাই্‌ বার্ণল ও নাই (যারা এটা বুঝলে না, তাদের বলি, রেফার টু ভানু বন্দ্যো )…সোজা কথায়, আমার টাকাও নাই, তাই সোনা কেনার স্বপ্নও নাই। কিন্তু আমি ভাবছি, সোনার ব্যবসাদারদের কথা, সেইসব কন্যাদায়গ্রস্ত বাবা-মায়েদের কথা, যাঁদের সামাজিক অবস্থান নির্ধারিত হয় মেয়েকে কত সোনা দিয়েছেন তার ওপর, আর সেইসব অগণিত মহিলা এবং পুরুষদের কথা, যাঁরা মনে করেন সোনা পরে ঘুরে বেড়ানো এবং নিয়মিত সোনা কেনা তাঁদের অবশ্য কর্তব্যের মধ্যে পরে (এর মধ্যে অবশ্যই আছেন আমাদের বাপ্পীদা) !
হেব্বি চাপ বুঝলে! ভেবে দেখলাম, এই সমস্যা থেকে আমাদের এক মাত্র বাঁচাতে পারে দেব (যাকে আবার কেউ কেউ বলে দেভ! ) এই সবে আফ্রিকা থেকে ঘুরে এসেছে…দু-চারটে সোনার খনির সন্ধান পেয়ে থাকলেও থাকতে পারে আমাদের হিরো!